অফবিট

দামেস্ক বিশ্বের সবচেয়ে কম খরচের শহর

উস্মে হাফসা: প্রযুক্তির ওপর ভর করে এগিয়ে যাচ্ছে বিশ্ব, এগিয়ে যাচ্ছে মানব সভ্যতা। বিশ্বের ১৭৩টি শহরের ওপর জরিপ করে বিশ্বের ব্যয়বহুল শহরগুলোর একটি তালিকা করেছে দ্য ইকোনমিস্ট ইন্টেলিজেন্স ইউনিট (ইআইইউ)।

যুক্তরাজ্যের লন্ডনভিত্তিক সাময়িকী দ্য ইকোনমিস্ট–এর ইন্টেলিজেন্স ইউনিটের এ বছরের তালিকায় দেখা গেছে, সবচেয়ে কম খরচে জীবনধারণ করা যায় সিরিয়ার দামেস্ক শহরে। বিশ্বের অন্যতম ঐতিহাসিক এই শহরের অবস্থান রয়েছে তালিকতার ১৭৩ নম্বরে।

সম্প্রতি সংস্থাটিরিএক জরিপে দেখা যায়, সিরিয়ার পর ১৭২ নম্বরে আছে লিবিয়ার ত্রিপোলি, ১৭১ নম্বরে উজবেকিস্তানের তাশকেন্ট, ১৭০ নম্বরে তিউনিসিয়ার তুনিস ও ১৬৯ নম্বরে স্থান পেয়েছে কাজাখস্তানের আলমাটি।

এছাড়াও জরিপে দেখা গেছে, এক লিটার পেট্রলের দাম সবচেয়ে বেশি হচ্ছে হংকংয়ে। সেখানে এই জ্বালানির দাম ২ ডলার ৫০ সেন্ট প্রতি লিটার। অর্থাৎ বাংলাদেশি টাকায় হংকংয়ে এক লিটার পেট্রলের দাম পড়বে ২১৪ টাকা ৩৭ পয়সা।

এই তালিকার পরের চারটি স্থানে আছে নেদারল্যান্ডসের আমস্টারডাম, নরওয়ের অসলো, ইসরায়েলের তেল আবিব এবং জার্মানির হামবুর্গ। এসব শহরে পেট্রলের দাম যথাক্রমে ২ ডলার ১৮ সেন্ট, ২ ডলার ৬ সেন্ট, ২ ডলার এবং ১ ডলার ৯৯ সেন্ট।

যা ছিল ২০২০ সালের জরিপ: 

বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল শহরের তালিকার শীর্ষে ২০২০ সালে যৌথভাবে ছিল ফ্রান্সের প্যারিস, হংকং ও সুইজারল্যান্ডের জুরিখ। তালিকার চতুর্থ স্থানে ছিল সিঙ্গাপুর আর পঞ্চম স্থানে যৌথভাবে ছিল জাপানের ওসাকা ও ইসরায়েলের তেল আবিব।

জীবনযাপনে খরচের হিসেবের ভিত্তিতে তৈরি করা লন্ডনভিত্তিক গবেষণা এই সংস্থার বার্ষিক জরিপে এ তথ্য জানানো হয়েছিল। সংস্থাটি ২০২০ সালে ১৩৩টি শহরের ওপর জরিপ করেছিল।

দ্য ইকোনমিস্ট ইন্টেলিজেন্স ইউনিটের করা ২০২০ সালের ওই বার্ষিক জরিপে বলা হয়, সিঙ্গাপুরে জীবনযাপনের ব্যয় কমেছে। করোনার কারণে দেশটিতে বিদেশি কর্মীর সংখ্যা কমেছে। ১৭ বছরের মধ্যে শহরটির জনসংখ্যা সবচেয়ে কমেছিল ২০২০ সালে।

ব্যয়বহুল শীর্ষ ১০ শহরের তালিকায় সুইজাল্যান্ডের জেনেভার অবস্থান ৭ম আর ৯ম অবস্থানে রয়েছে ইউরোপের আরেক দেশ ডেনমার্কের কোপেনহেগেন। আমেরিকার নিউইয়র্ক সিটি ও লস অ্যাঞ্জেলেসের অবস্থান যথাক্রমে ৮ম ও ১০ম।

ওই বছরের জরিপে দেখা গেছে, করোনার কারণে বিশ্বব্যাপী ইলেকট্রনিক্সের দাম বেড়েছে। তবে কমেছে পোশাকের দাম। প্রধান খাদ্য আইটেমগুলির দাম একই রয়েছে। তবে প্রসাধনী, তামাক এবং অ্যালকোহলের দাম বেড়েছে। 

জীবনযাপনে ব্যয়বহুল শহরের তালিকায় ২০১৯ সাল থেকেই অবস্থান হারাচ্ছে আমেরিকা, আফ্রিকা, পূর্ব ইউরোপ। তবে, পশ্চিম ইউরোপের শহরগুলো ক্রমেই ব্যয়বহুল হয়ে উঠছে।

এবারের তালিকায় ২০ ধাপ নিচে নেমে গেছে ব্যাংকক। এই শহরের বর্তমান অবস্থান ৪৬তম। তালিকায় সিডনির অবস্থান ১৫ নম্বরে। লন্ডন ২০ তম, মস্কো আছে ১০৬ নম্বরে ও দিল্লির অবস্থান ১২১-এ।

করোনা মহামারি ভোক্তাদের আচরণকে বদলে দিয়েছে। কারণ বাড়ি থেকে কাজ করার জন্য ইলেকট্রনিক্স ডিভাইসের দাম বেড়েছে। আবার লকডাউনের কারণে রেস্তোরাঁয় না যাওয়ায় খাবারের দাম একই রয়েছে। 

উল্লেখ্য, দ্য ইকোনমিস্ট ইন্টেলিজেন্স ইউনিট হচ্ছে একটি ব্রিটিশ ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান। তারা ব্যবসায়িক উন্নয়ন, অর্থনীতি, রাজনৈতিক প্রবাহ ও সরকারের নীতিমালা বিশ্লেষণ করে থাকে। তারা সাধারণত চার ভাবে তথ্য সরবরাহ করে থাকে- ডিজিটাল পোর্টফোলিও, প্রিন্ট, গবেষণা প্রতিবেদন ও বিভিন্ন সেমিনার। এটি দ্য ইকোনমিস্ট গ্রুপের একটি শাখা প্রতিষ্ঠান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরও পড়ুন